পাকিস্থান টেস্টে ঘটে গেল অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা, নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কা

পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে অংশ নিতে বাংলাদেশ দল এখন পাকিস্তানে অবস্থান করছে। রাওয়ালপিন্ডিতে স্বাগতিক পাকিস্তান ও সফরকারী বাংলাদেশের মধ্যকার টেস্ট চলছে। তবে এই টেস্ট চলাকালেই নতুন করে প্রশ্ন উঠেছে নিরাপত্তাব্যবস্থা নিয়ে।

এদিকে পিসিবিকে রীতিমত মিনতির পর বাংলাদেশ দলকে পাকিস্তান সফরে রাজি করেছে পিসিবি। তবুও নিরাপত্তার শঙ্কায় মুশফিকুর রহিমের মত তারকা ক্রিকেটার সফরে যাননি। যারা সফরে গিয়েছেন, তাদের অবশ্য কড়া নিরাপত্তাব্যবস্থার বলয়েই রেখেছে পাকিস্তান। তবে রাওয়ালপিন্ডি টেস্টে একটি ঘুড়ির ‘অনাহূত আগমন’ ফের প্রশ্নের মুখে ফেলেছে নিরাপত্তাব্যবস্থাকে।

এদিকে বাংলাদেশ দলকে রাষ্ট্রীয় পর্যায়ের নিরাপত্তা দিতে গোটা এলাকা আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীদের দ্বারা ঠেসে রেখেছে প্রশাসন। এমনকি সীমাবদ্ধ করে ফেলা হয়েছে মানুষ ও যান চলাচলও। কিন্তু এত নিরাপত্তার মধ্যেও কীভাবে একটি ঘুড়ি মাঠের ভেতরেই এসে পড়ে- এ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

গতকাল শুক্রবার রাওয়ালপিন্ডি টেস্টের প্রথম দিনের চা বিরতির আগমুহূর্তে হুট করে একটি ছেঁড়া ঘুড়ি এসে পড়ে মাঠে। ঘুড়ি দেখে আম্পায়াররা কিছুক্ষণ খেলা বন্ধও রাখেন। ফিল্ডার নাসিম শাহ সেটি কুড়িয়ে নেন, পরে তা নিয়ে যান এক মাঠকর্মী।

এই বিষয়টি সহজভাবে নেননি অনেকে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সমালোচনাও হয়েছে। বেলায়েত নামের এক সমর্থক ফেসবুকে লিখেছেন, ‘এভাবে যদি একটি ঘুড়ি মাঠে ঢুকে যায়, কে জানে আর কী কী ঢুকতে পারে!’ প্রভাস নামের এক সমর্থকের মন্তব্য, ‘ঘুড়িটি মাঠে আসার সাথে সাথেই খেলোয়াড়দের উচিত ছিল মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে আসা।